একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে যা বলেছে যুক্তরাষ্ট্র

9

ঠিকানা ডেস্ক : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রধান রাজনৈতিক দলগুলোর অংশগ্রহণকে ইতিবাচক মনে করছে যুক্তরাষ্ট্র।
বাংলাদেশের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর গত ১ জানুয়ারি, মঙ্গলবার, রাতে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে ইউএস স্টেট ডিপার্টমেন্টের সহকারী মুখপাত্র রবার্ট প্যালাদিনো এ কথা বলেন।
বিবৃতিতে বলা হয়, ২০১৪ সালের নির্বাচনে যে প্রধান রাজনৈতিক দল নির্বাচন বর্জন করেছিল, তাদের একাদশ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করা ‘ইতিবাচক বিকাশ’ হিসেবে দেখছে যুক্তরাষ্ট্র।
তবে যুক্তরাষ্ট্র উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছে, নির্বাচনের আগে বিভিন্ন প্রার্থীকে হয়রানি ভয়-ভীতি প্রদর্শন ও বিরোধী প্রার্থীদের সঙ্গে সহিংসতা প্রচারণাকে কঠিন করেছে। এছাড়াও নির্বাচনের দিন বেশ কিছু অনিয়ম, ভোট কাস্ট করতে না দেয়ার বিষয়গুলো স্বচ্ছ নির্বাচন প্রক্রিয়ার বিশ্বাসযোগ্যতা কমিয়ে দিয়েছে।
যুক্তরাষ্ট্র বলছে, আমরা সব দলকে সহিংসতা থেকে বিরত থাকতে আহ্বান করি এবং নির্বাচন কমিশনকে সবার সঙ্গে মিলে গঠনমূলকভাবে কাজ করার অনুরোধ জানাই।
বিবৃতিতে বলা হয়, ‘বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক উন্নয়নে যুক্তরাষ্ট্র সবসময় পাশে আছে, ভবিষ্যতেও থাকবে। এছাড়াও যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের বড় বিনিয়োগকারী ও দেশের বাজারে রপ্তানির বড় মার্কেট। তাছাড়া যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূতদের বড় অংশ দীর্ঘদিন ধরে বসবাস করছে।
যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে অসাধারণ সাফল্য এবং বাংলাদেশের গণতন্ত্র ও মানবাধিকারের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আমরা এই বিষয়গুলো কাজে লাগিয়ে ভবিষতে ক্ষমতাসীন সরকার ও বিরোধী দলের সঙ্গে দেশের অগ্রগতির জন্য কাজ করব।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here