৫২ হাজার প্রাথমিক শিক্ষককে সরকারি স্কুলে বদলি

2

নিজস্ব প্রতিনিধি : ২৬ হাজার বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় একযোগে সরকারীকরণ করা হয়েছে। এই স্কুলগুলোর ৫০ হাজার শিক্ষককে এমপিওভুক্ত করা হয়েছে। তারা সরকারের নির্ধারিত হারে বেতন, ভাতা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা ভোগ করছেন। কিন্তু স্কুলগুলোতে শিক্ষার মান উন্নত হয়নি। নিয়মিত শিক্ষাদানও করা হয় না অনেক স্কুলে। শিক্ষকদের শিক্ষার মান ও পদ্ধতি নিচু। এ অবস্থায় সরকার এসব বিদ্যালয়ের সব শিক্ষককে পর্যায়ক্রমে প্রশিক্ষণ দেওয়ার কর্মসূচি নিয়েছে।

জানা যায়, এই ২৬ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে প্রথম পর্যায়ে দুজন করে শিক্ষককে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। এই কর্মসূচির আওতায় দুজন করে মোট ৫২ হাজার শিক্ষককে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বদলি করা হবে। সেখানে তাদের দিয়ে ছয় মাস শিক্ষকতা করানো হবে। পুরোনো সরকারি স্কুলে অভিজ্ঞ শিক্ষকেরা কীভাবে ক্লাস নেন, শিক্ষাদান করেন, শিক্ষার্থী-শিক্ষক সম্পর্ক, স্কুলের ও শিক্ষার পরিবেশসহ প্রাসঙ্গিক বিষয়গুলো সম্পর্কে তারা জ্ঞান, অভিজ্ঞতা অর্জন করবেন। প্রশিক্ষণ আকারে এই শিক্ষা লাভের পর তারা সেই স্কুলে ক্লাস নেবেন। ছয় মাস সরকারি স্কুলে কাজ করার পর তাদের আগেকার স্কুলে ফিরে পাওয়া, অন্য স্কুলে বা প্রশিক্ষণ গ্রহণকারী স্কুলেও নিয়োগ করা হতে পারে। সরকারীকরণ করা স্কুলগুলোতে অন্য সরকারি স্কুল থেকে অভিজ্ঞ শিক্ষকদের বদলি করা হবে। এক বছরের জন্য তাদের নতুন স্কুলেই রাখা হবে। নতুন সরকারীকরণ করা স্কুলগুলোর অবশিষ্ট শিক্ষকদেরও একইভাবে পরবর্তীতে সরকারি পুরোনো স্কুলে নির্দিষ্ট সময়ের জন্য বদলি করা হবে।
বেসরকারি আন-রেজিস্টার্ড স্কুল সরকারীকরণ এবং শিক্ষকদের এমপিওভুক্ত করা হলেও তাদের কোনো প্রশিক্ষণ না থাকায় তাদের পক্ষে মানসম্পন্ন শিক্ষা দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। এই বাস্তবতা বিবেচনায় নিয়েই সরকার তাদের বদলি করে যথাযথ প্রশিক্ষণ লাভের ব্যবস্থা করছে। চলতি এপ্রিল মাসেই এই কার্যক্রম শুরু হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here